বিরিশিরি, নেত্রকনা

মূল পাতা / দর্শনীয় স্থান / ময়মনসিংহ / নেত্রকোণা / বিরিশিরি, নেত্রকনা

বিরিশিরি, নেত্রকনা

প্রকাশকালঃ May 29, 2020

কৃতজ্ঞতায়ঃ মোঃ তানভির হোসেন তুফান

দূর্গাপূর হচ্ছে নেত্রকোনা জেলার একটি উপজেলা যা বাংলাদেশ সীমান্তের শেষ মাথায় এবং ভারতের মেঘালয় বর্ডারের কাছাকাছি। এ জায়গাটি মূলতঃ গারো উপজাতি অধ্যুষিত। ঢাকা থেকে প্রায় ১৮২ কিলোমিটার দূরত্বে অবস্থিত বিরিশিরি। ঢাকা থেকে ময়মনসিংহ হাইওয়েদিয়ে নেত্রকোণা শহর হয়ে দূর্গাপুর উপজেলাতে অবস্থিত বিরিশিরি। ময়মনসিংহ হাইওয়ে যতটা ভালো অবস্থা; নেত্রকোণা থেকে বিরিশিরি রাস্তা খুবই খারাপ অবস্থা। নেত্রকোণা শহরের পর থেকে বিরিশিরি দূরত্ব ৩৩-৩৫ কিলোমিটার।

হ্রদের অপরুপ নীল জলের প্রধান উৎস হচ্ছে সমেশ্বরী নদী। এই নদী বর্তমানে কয়লা খনি হিসেবে অধিক পরিচিত। নীল জ্বলের হ্রদের মতই সোমেশ্বরী নদী আপন রুপে অনন্যা।

ঢাকা থেকে দূরত্ব

১৬৫ কিলোমিটার

যাতায়াত

ঢাকার মহাখালী বাস টার্মিনাল থেকে সরাসরি দুর্গাপুরের উদ্দেশ্যে সরকার এবং জিন্নাত পরিবহণের বাস ছেড়ে যায়। এ দুটি বাসে চড়ে দুর্গাপুর যেতে ২৫০ থেকে ৩৫০ টাকা লাগে।

দুর্গাপুর বলা হলেও সাধারণত এই বাসগুলো সুখনগরী পর্যন্ত যায়। সুখনগরী থেকে নৌকায় করে একটা ছোট নদী পার হয়ে রিকশা, বাস বা মোটর সাইকেলে দূর্গাপুর যেতে হয়। বাস যেতে ২০ টাকা, রিকশায় যেতে ৮০ থেকে ১০০ টাকা এবং মোটর সাইকেলে ২ জন ১০০ টাকা ভাড়ায় দুর্গাপুর যাওয়া যায়।

দুর্গাপুর থেকে ঢাকা ফিরতে দুর্গাপুরের তালুকদার প্লাজার সামনে থেকে রাত ১১ টা এবং ১১ টা ৩০ মিনিটে দুটি নাইট কোচ ঢাকার মহাখালীর উদ্দেশ্যে যাত্রা করে। এছাড়া জারিয়া ট্রেন ষ্টেশনে হতে দুপুর ১২ টায় একটি ট্রেন ঢাকার উদ্দেশ্যে ছেড়ে আসে।

হোটেল

  • স্বর্ণা গেস্ট হাউস
    0171228698, 01728438712

ছবি

ভিডিও

খরচ পর্যালোচনা

২০০০ থেকে ৩০০০ টাকা লাগবে।

উপরের তথ্য সম্পর্কে মতামত দিন, কোন তথ্য ভুল থাকলে ধরিয়ে দেওয়ার জন্য অগ্রিম ধন্যবাদ।
Language